বিশ্ববাসীর জন্য রহমত স্বরূপ
মুহাম্মদ (সঃ) এর জীবনের মত জীবন, তাঁর চিন্তা ভাবনা ও জিহাদের শক্তি, তাঁর কাওমের কুসংস্কার ও জাতির জাহেলিয়াত অপসারণ, মুর্তি পূঁজকদের কাছ থেকে যে সব পরিস্থিতির মুখোমুখি হয়েছেন সেসব মুকাবিলা করার ক্ষেত্রে তাঁর দৃঢ়তা, তাঁর বানী উঁচু করা, তাঁর ধৈর্য ধারণ , ইসলামি আক্বীদাকে প্রোথিত করার জন্য এসব কাজ...এগুলো প্রমান করে, তাঁর মাঝে কোন কপটতা ছিল না, তিনি অসত্যের উপর লালিত নন। তিনি দার্শনিক, বক্তা, রাসুল ও জীবন দর্শন প্রনেতা, মানবতার বুদ্ধির দিশারী। সন্দেহমুক্ত একজন ধর্ম প্রণেতা। পৃথিবীতে বিশটি দেশের স্থপতি। আকাশে আধ্যাত্মিক জগতের বিজেতা। আর কে তাঁর মত মানবিক মাহাত্ম অর্জন করতে পেরেছে! আর কে তাঁর মত পূর্নতার এমন স্তরে পৌঁছতে পেরেছে!

Related Posts


Subscribe